May 12, 2021, 2:37 am

সংবাদ শিরোনাম

ভাস্কর্যবিরোধী বক্তব্য রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত: তথ্যমন্ত্রী

image_pdfimage_print

প্রতিবেদক: তথ্যমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের উদ্দেশ্যেই অনুমতি ছাড়া সমাবেশ করতে চায় বিএনপি । আর ভাস্কর্যের বিরুদ্ধে যারা বক্তব্য দিচ্ছেন, তাদের কোনো না কোনো রাজনৈতিক দলের সাথে সংশ্লিষ্টতা আছে।

দেশে ভাস্কর্য নিয়ে অহেতুক একটি বিতর্ক সৃষ্টির অপচেষ্টার অভিযোগ তুলে তথ্যমন্ত্রী বলেন , উপমহাদেশে ইংরেজরা আসার পর কেউ কেউ ইংরেজি শিক্ষা হারাম বলে ফতোয়া দিয়েছিল, টেলিভিশন চালু হলে তা দেখা হারাম এবং হজে যাওয়ার জন্য ছবি তোলাও হারাম বলে বিভ্রান্তি ছড়ানো হয়েছিল। মুক্তিযুদ্ধের সময় ফতোয়া দেয়া হলো যে, যারা পাকিস্তানের বিরুদ্ধে লড়াই করছে তারা সবাই কাফের। সেই ধারাবাহিকতাতেই তাদেরই প্রেতাত্মারাই আজকে ভাস্কর্য নিয়ে প্রশ্ন তুলছে, বিভ্রান্তি ছড়াচ্ছে।

সমগ্র বিশ্বের উদাহরণ দিয়ে তথ্যমন্ত্রী আরো জানান, ইসলামী দেশগুলোসহ সারাবিশ্বে এমনকি সৌদি আরবেও মানুষের অবয়বসহ নানা ভাস্কর্য আছে। বলেন, ইরানে ইসলামী বিপ্লবের মাধ্যমে যেখানে ইসলামী সরকার প্রতিষ্ঠিত হয়েছে, সেখানে আয়াতুল্লাহ খোমেনীরও ভাস্কর্য আছে। বাংলাদেশেও অনেক আগে থেকে বহু নেতা, কবি, সাহিত্যিকের ভাস্কর্য আছে। তখন কেউ কিছু না বললেও হঠাৎ করে এই প্রশ্ন তোলাকে রাজনৈতিক উদ্দেশ্যেপ্রণোদিত বলেছেন তিনি।

তার মতে, যারা এই প্রশ্নগুলো উপস্থাপন করছেন তাদের কোনো কোনো রাজনৈতিক দলের সাথে সংশ্লিষ্টতা আছে। প্রশ্ন তোলা ব্যক্তিরা নির্বাচন কমিশনে নিবন্ধিত বিভিন্ন দলের নেতা। সুতরাং তারা যখন বক্তব্য দেয়, তখন রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবেই বক্তব্য দেয়। ইসলাম একটি শান্তির ধর্ম, এর অপব্যাখ্যা করে বিভ্রান্তি না ছড়ানোর জন্য বিনীতভাবে অনুরোধ জানিয়েছেন তিনি। এসবের ইন্ধনদাতা হিসেবে স্বাধীনতাবিরোধীদের দিকে আঙ্গুল তুলেছেন তিনি। এজন্য সবাইকে এবিষয়ে সতর্ক থাকার অনুরোধ জানিয়েছেন তথ্যমন্ত্রী।’

তথ্যমন্ত্রী জানান, বিএনপি যখন ক্ষমতায় ছিল, তখন অনুমতি না পাওয়ার কারণে বহু সমাবেশ করতে পারেনি আওয়ামী লীগ। সেজন্য রাস্তায় প্রতিবাদ করতে হয়েছে। তিনি বলেন, আগে থেকেই বলবৎ যে নিয়মে সভা-সমাবেশের জন্য অনুমতি নেবার কথা ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ যখন আবার মনে করিয়ে দিল তখন মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সাহেব এ নিয়ে কথা বলছেন। গত কিছুদিন ধরে বিনা অনুমতিতে বিএনপির হঠাৎ করে সমাবেশ আয়োজনের সমালোচনা করেন তিনি। তথ্যমন্ত্রীর অভিযোগ, বিএনপির উদ্দেশ্য হচ্ছে হঠাৎ চোরাগুপ্তা মিছিল বের করে গাড়ি ভাঙচুর করা।

এপ্রসঙ্গে তথ্যমন্ত্রী আরো বলেন, ‘২১ আগস্ট সন্ত্রাসবিরোধী সমাবেশ করার জন্য বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে যখন মুক্তাঙ্গণের জন্য অনুমতি চাওয়া হয়েছিল; অনুমতি দেয়া হয় নাই। কারণ মুক্তাঙ্গণের আশেপাশে বিল্ডিং না থা ওপর থেকে বোমা মারার বা গ্রেনেড ছোঁড়ার সুযোগ ছিল না’

বৃহস্পতিবার দুপুরে রাজধানীর ধানমণ্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে দলের ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ উপকমিটির পক্ষ থেকে করোনা প্রতিরোধ সামগ্রী বিতরণের অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন তথ্যমন্ত্রী।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved © 2017 nktelevision
Design & Developed BY Freelancer Zone