মঙ্গলবার, ২৪ মে ২০২২, ১২:৫৭ পূর্বাহ্ন

নোয়াখালীতে তুচ্ছ ঘটনায় হামলা,আহত ৬, ৯৯৯ এ ফোন করে রক্ষা

নোয়াখালী প্রতিনিধি:
নোয়াখালী সদর উপজেলার ৮নং এওজবালিয়া ইউনিয়নের করমুল্লা বাজারে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষ আল আমিন ও বেলাল গং এর হামলায় নাসির উদ্দিন ডাক্তার বাড়ির একই পরিবারের ৬ জন আহত হয়েছে।

এসময় বাড়িঘর ভাংচুর , মাক্রোবাস ভাংচুর, স্বর্নালংকার ও নগদ টাকা লুটপাটের অভিয়োগ করেন ভুক্তভোগী পরিবার।
আহতরা হলেন, আহতরা হলেন, গ্রাম ডাক্তার নাসির উদ্দিন (৫৫), স্ত্রী সায়মা আক্তার (৪৫) , তার ছেলে দেলোয়ার হোসেন (১৮), ছেলে আনোয়ার হোসেন (২৫), মেয়ে নাসিমা আক্তার (৩০), ছেলের বউ শিমুলী আক্তার(২২)। আহতদের মধ্যে ডাঃ নাসির ও তার ২ পুত্র নোয়াখালী ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন।

হাসপাতালে গেলে আহরা জানান, গত ৯ মে সোমবার সকালে ঝড়ের মধ্যে প্রতিপক্ষ বেলালের ছেলেরা বাড়ির নারিকেল গাছে উঠে নারিকেল পাড়ছেন। এসময় গ্রাম ডাক্তার নাসির উদ্দিন তাদের বাধা দিলে প্রতিপক্ষ বেলাল ক্ষিপ্ত হয়ে লোহার রড় নিয়ে বাড়ির পাশ্বে এসে ডাঃ নাসিরকে মারধর করে চলে যায়।

একই দিন সন্ধ্যার পর বেলাল পাশ্ববর্তী তার আত্বীয় ঢাকাইয়াগো বাড়ির আল আমিন, মামুন ,জুয়েল, দেলোয়ার, আবদুল সহিদ সহ অজ্ঞাত ২০/২৫ জন দেশিয় ধারালো অস্র, দা, লাঠিসোঠা, নিয়ে এসে তাদের বাড়িতে ঢুকে অতর্কিত হামলা চালায়। এসময় নাসিরের ছেলেদের কুপিয়ে আহত করে ।
তাদের বাঁচাতে আসলে তারা নাসির উদ্দিন সহ পরিবারের অন্যান্নদের পিটিয়ে আহত করে । কোন উপায় না দেখে নাসিরের মেয়ে নাসিমা ৯৯৯ এ ফোন দিলে পুলিশ ঘটনাস্থলে আসে। পরে স্থানীয় লোকজন আহতদের নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যায়।

এ বিষয়ে সুধারাম মডেল থানার তদন্ত ওসি মোঃ জাকির হোসেন জানান, ৯৯৯ এর ফোন পাওয়া মাত্রই তিনি ঘটনাস্থলে পুলিশ পাটিয়েছেন। ভুক্তভোগীদের অভিযোগ দিতে বলা হয়েছে। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published.

পুরাতন খবর

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২১৩১৪১৫
১৬১৭১৮১৯২০২১২২
২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
৩০৩১  
© All rights reserved © 2017 nktelevision
Design & Developed BY Shera Web